পরীক্ষকের নিয়মাবলী

০১.

কেন্দ্র কেন্দ্রধারীর মধ্যে থেকে সাক্ষাৎকারের মাধ্যমে পরীক্ষক নির্বাচন করে।
পরীক্ষার্থীর সাক্ষাৎকারে অংশ নেওয়ার জন্য যোগ্যতা অর্জনের জন্য কেন্দ্রের ধারককে অবশ্যই কোনও স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক এবং এস.বি.এস.কে.কে থেকে ৭ ম বর্ষ পাশ করতে হবে বা যে কোনও সাংস্কৃতিক বিষয়ে এর সমতুল্য হতে হবে।

০২.

০৩.

৫০ টিরও বেশি প্রার্থী থাকা কেন্দ্রধারীরা ব্যবহারিক এবং তাত্ত্বিক পরীক্ষার্থীর জন্য আবেদন করতে পারবেন।
প্রতিটি সেশনে আবেদনের ভিত্তিতে সমস্ত আবেদনকারীকে সাক্ষাৎকারের জন্য ডাকা হয়।

০৪.

০৫.

এই বিষয়ে নির্বাচিত বোর্ডের রায় অনুযায়ী বাছাই করা হয়।

০৬.

পরীক্ষাগুলি ব্যবহারিক পরীক্ষা নেওয়ার জন্য সুরো ভারতী সংগীত কলা কেন্দ্রের সাথে সংযুক্ত যে কোনও একটি কেন্দ্রে নিয়োগ দেওয়া হয়।

০৭.

এটির গ্যারান্টি নেই যে প্রতি বছর প্রতিটি পরীক্ষককে কেন্দ্র বরাদ্দ দেওয়া হবে।

০৮.

কেন্দ্রে পরীক্ষককে বরাদ্দ দেওয়ার ক্ষেত্রে কেবল তার যোগ্যতা এবং অভিজ্ঞতা হতে হবে।

০৯.

একবার করা নিয়োগ সংশ্লিষ্ট প্রত্যেকের উপর আবদ্ধ হবে। আমরা একে অপরের সাথে যোগাযোগ করতে কেন্দ্র ধারক এবং পরীক্ষককে সহায়তা করা হয়।

১০.

পরীক্ষকের নিয়োগপত্র পাওয়ার পরে, কেন্দ্রধারক এবং পরীক্ষককে অবশ্যই ১০ দিনের মধ্যে একে অপরের সাথে যোগাযোগ করতে হবে এবং দ্রুত পরীক্ষার তারিখটি ঠিক করতে হবে।

১১.

প্রতিটি পরীক্ষার্থী তার এবং তার সম্মতিপত্রটি আমাদের এবং কেন্দ্রধারীর কাছে দেবেন। এই চিঠির ভিত্তিতে কেন্দ্রের ধারক শিক্ষার্থীদের ব্যবহারিক পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করবেন।

১২.

পরীক্ষক তার ভ্রমণ এবং থাকার সমস্ত ব্যবস্থা করবেন। কেন্দ্র এর জন্য বিস্তৃত পরিমাণ বহন করবে।

১৩.

কোনও পরীক্ষককে সময় নির্ধারনের কমপক্ষে ৩০ মিনিটের আগে কেন্দ্রে উপস্থিত থাকতে হবে।

১৪.

 পরীক্ষার কমপক্ষে ৭২ ঘন্টা আগে অফিসের কাছ থেকে তথ্য প্রাপ্ত হলে পরীক্ষক যদি কিছু অপ্রত্যাশিত পরিস্থিতির কারণে তারিখে উপস্থিত হতে ব্যর্থ হন তবে কেন্দ্র এই দায়িত্ব বহন করবে। 

১৫.

পরীক্ষার সময় পরীক্ষার্থী সিলেবাস এবং বিধি ও বিধিবিধি অনুসারে কথা বলার পরীক্ষার নির্দেশকে কঠোরভাবে অনুসরণ করতেন।

১৬.

একজন পরীক্ষক প্রতিটি ছাত্রকে তার উপস্থিতিতে শিক্ষার্থীদের জন্য প্রদত্ত জায়গাতে স্বাক্ষর করতে বলবেন।

১৭.

একজন পরীক্ষার্থী পরীক্ষার তারিখ থেকে ১০ দিনের মধ্যে ফলাফলপত্র (তার স্বাক্ষর এবং কেন্দ্রধারীর স্বাক্ষর সহ) জমা দেবেন। এই নিয়মটি যদি পরীক্ষক কর্তৃক মান্য না হয় তবে প্রতিদিন ১৫ ডলার হিসাবে পেনাল্টি আদায় করা হবে।

১৮.

একজন পরীক্ষকও কেন্দ্র সম্পর্কে একটি প্রতিবেদন জমা দিতে হবে।

১৯.

রেজাল্ট শীট এবং অন্যান্য কাগজপত্র জমা দেওয়ার এক মাস পর পারিশ্রমিক বিল প্রদান করা হয়।
একজন পরীক্ষক পরীক্ষার কেন্দ্রে যথাযথ আচরণ বজায় রাখবেন অন্যথায় কেন্দ্র তার পরীক্ষককে  বাতিল করতে দায়বদ্ধ থাকবে ।

আমাদের ওয়েবসাইটে আসার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ

মোবাইল থেকে ব্যবহার করছেন?

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট

কপিরাইট © সুরভারতী সঙ্গীত কলাকেন্দ্র