ডিপ্লমা পরীক্ষা সংক্রান্ত নিয়মাবলী

১) রেজিস্ট্রেশন নম্বর বিষয় ভিত্তিক । অর্থাৎ কোনো ছাত্রছাত্রী যদি বিষয় পরিবর্তন করে তবে তার রেজিস্ট্রেশন নম্বর নতুন করে হবে । একটি বিষয়ের জন্য একটি রেজিস্ট্রেশন নম্বর হবে ।

২) রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেটে সকল ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকের নাম ভাল করে দেখে নিতে হবে । কোনো ভুল থাকলে তা সংশোধনী তালিকায় লেখা বাধ্যতামূলক । কোনো ছাত্র বা ছাত্রীকে রেজিস্ট্রেশন একবারই দেওয়া হবে । উক্ত সার্টিফিকেট এবং রেজিস্ট্রেশন নম্বর সুরভারতী সঙ্গীত কলাকেন্দ্রে পরীক্ষা দেবার সময়ে প্রতিক্ষেত্রে লিখতে হবে । এই সার্টিফিকেট হারিয়ে ফেললে ২০টাকা ফাইন দিয়ে পুনরায় গ্রহন করতে হবে ।

৩) অ্যাডমিট কার্ডে সাক্ষর করার জায়গা ব্যতিত অন্য কোথাও পেনসিল বা পেনে কিছু লেখা যাবে না ।

৪) ছাত্রছাত্রীরা কেন্দ্রাধ্যক্ষ মারফত পরীক্ষার মানপত্র পাওয়ার ৩০দিনের মধ্যে পুনঃমূল্যায়নের জন্য আবেদন করতে পারবে। এরজন্য কেন্দ্রাধ্যক্ষ মারফত আবেদন পত্র ও ৩০ টাকা প্রতি ছাত্রছাত্রী জমা দিতে হবে ।

৫) অঙ্কন পরীক্ষার্থীদের লিখিত পরীক্ষার সাথে ‘প্রোজেক্ট’ এবং সঙ্গীত, আবৃত্তি এবং নৃত্য বিভাগের ছাত্রছাত্রীদের ‘অ্যাসাইনমেন্ট’ করতে হবে ।

৬) আমাদের পরিচালিত বিভিন্ন বর্ষের পরীক্ষায় ব্যবহারিক ও লিখিত দু’ভাবেই গৃহীত হয় ।

৭) লিখিত পরীক্ষার দিন প্রয়োজনে কেন্দ্র পর্যবেক্ষক পাঠাতে পারে ।

৮) লিখিত পরীক্ষা ব্যবহারিক পরীক্ষার আগেই আয়োজন করতে হবে । লিখিত পরীক্ষার খাতা ব্যবহারিক পরীক্ষকের কাছে জমা দিতে হবে ।

৯) প্রতিটি বিদ্যালয়ের ব্যবহারিক পরীক্ষার জন্য সুরভারতী সঙ্গীত কালকেন্দ্র ব্যবহারিক পরীক্ষক নিযুক্ত করবে ।

১০) লিখিত পরীক্ষা কেন্দ্রাধ্যক্ষগন নিজেদের সুবিধামত দিন ও সময় ঠিক করে আয়োজন করবেন । লিখিত পরীক্ষার খাতা এবং Theory signature Sheet সমস্তটাই ব্যবহারিক পরীক্ষককে জমা করতে হবে ।

১১) লিখিত পরীক্ষার কাগজপত্রে কোনও সমস্যা থাকলে তা গ্রহন করার ১৫ দিনের মধ্যে কেন্দ্রকে জানাতে হবে । নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে না জানালে কেন্দ্রাধ্যক্ষগনকে অতিরিক্ত জরিমানা দিয়ে কাগজপত্র গ্রহন করতে হবে ।

১২) লিখিত পরীক্ষার দিন কেন্দ্রব্যবস্থাপকগণ ছাত্রছাত্রীদের দিয়ে Theory signature Sheet – সই করাবেন । পরীক্ষার খাতা দেওয়ার সময় signature Sheet জমা না দিলে সেই খাতা জমা করা হবে না ।

১৩)  শাস্ত্রীয় পরীক্ষার খাতা যাতে সম্পূর্ণভাবে ছাত্রছাত্রীরা পূরণ করে সেদিকে কেন্দ্রাধ্যক্ষগণ অবশ্যই নজর রাখবেন । তাদের নাম, রোল নম্বর, বিদ্যালয়ের নাম, রেজিস্ট্রেশন নম্বর ইত্যাদি যেন সঠিকভাবে খাতায় লেখা থাকে সেটি অবশ্যই নজর রাখবেন ।

১৪) কেন্দ্রব্যবস্থাপকগণ কর্তৃক নির্ধারিত স্থানে ব্যবহারিক পরীক্ষা হবে ।ব্যবহারিক পরীক্ষার স্থান নির্বাচনের আগে কেন্দ্রব্যবস্থাপকগণদের খেয়াল রাখতে হবে যাতে সকল ছাত্রছাত্রী সঠিকভাবে বসার সুযোগ পায় এবং পরীক্ষা দিতে তাদের কোনও অসুবিধা না হয় । পরীক্ষাকেন্দ্রে যাতে সুন্দর সাংস্কৃতিক পরিবেশ বজায় থাকে সেই বিষয়েও খেয়াল রাখতে হবে কেন্দ্রব্যবস্থাপকগণকে । অনুগ্রহ করে মনে রাখবেন কোনও পরীক্ষাকেন্দ্রের বিরুদ্ধে সঠিক সাংস্কৃতিক পরিবেশ না থাকার অভিযোগ একাধিকবার উঠলে “সুরভারতী সঙ্গীত কলাকেন্দ্র” সেই অভিযোগ খতিয়ে দেখবে । অভিযোগ সত্য প্রমানিত হলে সেই পরীক্ষাকেন্দ্রটির রেজিস্ট্রেশন বাতিল করে দেওয়া হবে ।

১৫) কেন্দ্রব্যবস্থাপকগণকে অনুরোধ করা হচ্ছে তাঁদের বিদ্যালয়ে পরীক্ষার দিন স্থির করে কেন্দ্রের অফিসে জানাবেন । ব্যবহারিক পরীক্ষার তারিখ ও সময় অন্তত ৬০দিন পূর্বে ঠিক করতে হবে ।

১৬) ব্যবহারিক পরীক্ষা গ্রহনের শেষ তারিখ ৩০শে জুন । কোনও অসুবিধা থাকলে তা ‘সুরভারতী সঙ্গীত কলাকেন্দ্রে’- এর অনুমতি নিয়ে ৩১শে জুলাই-এর মধ্যে করা যেতে পারে, কিন্তু ব্যবহারিক পরীক্ষা কোনোমতেই অগাস্ট মাসে বা তার পরে করা যাবে না ।

১৭) ব্যবহারিক পরীক্ষার দিন অ্যাডমিট কার্ড না আনলে কোনও পরীক্ষার্থীকে বসতে দেওয়া হবে না । এই বিষয়ে কোনও অনুরোধ গ্রাহ্য করা হবে না । ব্যবহারিক পরীক্ষার দিন অঙ্কনের বিদ্যালয়গুলির জন্যে দুটি পত্রের পরীক্ষা মিলিয়ে মোট ৫ঘন্টার মধ্যে গ্রহণ করা বাধ্যতামূলক ।

১৮) অনেক কেন্দ্র থেকে পরীক্ষার দিন নতুন ছাত্রছাত্রীদের পরীক্ষায় বসানোর অনুরোধ আসে । এই বিষয়টি যথাসম্ভব এড়িয়ে চলার জন্য অনিরোধ করা হচ্ছে । পরীক্ষার দিন কোনও পরীক্ষার্থীর নাম কেটে অন্য কোনও পরীক্ষার্থীর নাম সংযোজন করা যাবে না ।

১৯) পরীক্ষার দিন কোনও ছাত্র বা ছাত্রী সরাসরি পরীক্ষায় বসলে সর্বাধিক ১০জন পর্যন্ত ছাত্র-ছাত্রী পিছু ৩০টাকা করে অতিরিক্ত জমা দিতে হবে এবং ১০ জনের বেশি হলে ২০টাকা করে জমা দিতে হবে । এছাড়া ছাত্রছাত্রীদের ফর্মগুলি অফিসে পাঠানো আবশ্যক ।এই ছাত্রছাত্রীদের সার্টিফিকেটগুলি আলাদাভাবে বিদ্যালয়ে পাঠানো হবে ।

২০) অ্যাডমিট কার্ডে কোনও পরীক্ষার্থীর নাম বা পরীক্ষাবর্ষ বা বিষয় ইত্যাদিতে কোনও ভুল থাকলে তা অবশ্যই সংশোধনী তালিকাতে উল্লেখ করবেন । মনে রাখবেন, সংশোধনী তালিকাতে না লিখলে ঐ ভুল সংশোধিত হবে না । সেক্ষেত্রে সার্টিফিকেটগুলিও ভুল যাবে । তখন সার্টিফিকেট সংশোধন করতে ৩০টাকা করে জরিমানা (পোস্টাল চার্জ আলাদা) দিতে হবে ।

২১) প্রগতিপত্র (Marksheet) ব্যবহারিক পরীক্ষার ৬০ দিনের মধ্যে প্রস্তুত হবে । এটি গ্রহন করার এক সপ্তাহের মধ্যে কোনও ত্রুটি থাকলে তা জানাতে হবে  এক সপ্তাহ পর প্রগতিপত্র সম্পর্কিত কোনও অভিযোগ শোনা হবে না ।

২২) ব্যবহারিক পরীক্ষার জন্য নিযুক্ত পরীক্ষক যাতে যথাযথ সম্মান পান সেদিকে কেন্দ্রব্যবস্থাপকগণকে খেয়াল রাখার জন্য অনুরোধ করা হচ্ছে । পরীক্ষাকেন্দ্রে পরীক্ষকের বসার স্থানে একটি সুন্দর চেয়ার ও টেবিল থাকা প্রয়োজন । যেহেতু অধিকাংশ পরীক্ষা গ্রীষ্মকালে হয় তাই পরীক্ষকের বসার স্থানে যাতে পাখার হাওয়া যায় সেটিও খেয়াল রাখা প্রয়োজন । পরীক্ষা যদি দুপুর ১২টার পর শেষ হয় তাহলে পরীক্ষকের দুপুরের খাওয়ার ব্যবস্থা করতে হবে । পরীক্ষা চলাকালীন অভিভাবক বা অন্য কেউ এসে পরীক্ষকের থেকে যাতে ছাত্রছাত্রীদের নম্বর বা অন্য কোনও বিষয়ে অতিরিক্ত প্রশ্ন জিঞ্জাসা করে তাঁকে বিরক্ত না করেন সেই বিষয়েও কেন্দ্রব্যবস্থাপককে লক্ষ্য রাখতে অনুরোধ করা হচ্ছে । তবে সকল কেন্দ্রব্যবস্থাপককেই পরীক্ষকের আপ্যায়নের জন্য অতিরিক্ত ব্যয়ভার গ্রহন না করার অনুরোধ করা হচ্ছে । পরীক্ষকরা পরীক্ষা গ্রহনের জন্য সমস্ত খরচ কেন্দ্রের অফিস থেকে পেয়ে থাকেন । তাই কেন্দ্রব্যবস্থাপকগণ পরীক্ষককে গাড়ি ভাড়া বা অন্য খরচের জন্য কোনও টাকা দেবেন না ।

আমাদের ওয়েবসাইটে আসার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ

মোবাইল থেকে ব্যবহার করছেন?

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট

কপিরাইট © সুরভারতী সঙ্গীত কলাকেন্দ্র